শনিবার, মে 25, 2024
শনিবার, মে 25, 2024

HomeFact CheckViralFact check: মদ্যপানের ভিডিওটি কি মুক্তাগাছার যুবলীগ নেত্রী তনুর? 

Fact check: মদ্যপানের ভিডিওটি কি মুক্তাগাছার যুবলীগ নেত্রী তনুর? 

Claim– মদ্যপান করছেন ময়মনসিংহের মুক্তাগাছা থানা যুবলীগ নেত্রী তনু 
Fact- ভাইরাল ভিডিওটি আওয়ামী লীগ নেত্রী তনুর নয়। বরং ভিডিওটি তিন বছর আগে থেকেই সোশ্যাল মিডিয়ায় রয়েছে। 

মদ্যপানের একটি ভিডিও সম্প্রতি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমগুলোতে ভাইরাল হয়। ভিডিওতে একজন তরুণীকে একটি বোতলে মুখ দিয়ে লাল রঙের পানীয় খেতে দেখা যাচ্ছে।ম। ভিডিওগুলো দেখুন এখানে, এখানে, এখানে এখানে। 

দাবি করা হচ্ছে ভাইরাল ভিডিওতে মদ্যপ অবস্থায় থাকা তরুণীটি ময়মনসিংহের মুক্তাগাছা থানার আওয়ামী লীগের নেত্রি ইশরাত জাহান তনু। 

নিউজচেকার-বাংলাদেশ যাচাই করে দেখেছে দাবিটি মিথ্যা। 

Fact check/ Verification

‘মদ্যপান’ করা নারী আওয়ামী লীগ নেত্রী ইশরাত জাহান তনু কি না, তা যাচাই করতে সর্বপ্রথম আমরা ভিডিও কি-ফ্রেম ও রিভার্স ইমেজ সার্চ এর সাহায্য নেই। অনুসন্ধানে ভাইরাল ভিডিওটির পুরোপুরি সাদৃশ্যপূর্ণ একটি ভিডিও  ২০২১ সালের অক্টবোরে একটি ফেসবুক একাউন্টে আপলোড করা হয়। ভিডিওটি দেখুন এখানে- Sudhamay Sarkar

ব্যবহারকারীর প্রোফাইল যাচাই করে জানা যায় তিনি একজন ভারতীয়। এছাড়াও ভিডিওর কথপোকথন লক্ষ্য করলে বুঝা যায় উপস্থিত ব্যক্তিদের বাংলা বলার ধরণ ও উচ্চারণ ভঙ্গীমা পশ্চিমবঙ্গের অনুরূপ। 

ভিডিওটি ছড়িয়ে পড়লে এই বিষয়টি নিয়ে বেশ কিছু প্রতিবেদন উঠে আসে বিভিন্ন গণ মাধ্যমে।এক পর্যায়ে স্থানীয় এই নেত্রীকে দল থেকে বহিষ্কারও করা হয়। প্রতিবেদন দেখুন এখানে, এখানে।  এ সংক্রান্ত চ্যানেল ২৪যমুনা টিভির প্রতিবেদন গুলোতে মুক্তাগাছার মহিলা লীগ নেত্রী ইশরাত জাহান তনু তার বিরুদ্ধে সকল অভিযোগ অস্বীকার করেন। 

অপরদিকে যমুনা টিভির প্রতিবেদনে তাদের নিজস্ব ফ্যাক্ট-চেকের মাধ্যমে  Meeran Thakur নামের একটি ফেসবুক একাউন্ট-এ একই ভিডিওর সন্ধান পায় বলে উল্লেখ করে। যেখানে একই ভিডিও ২০২২ সালের জুলাই মাসে আপলোড করা হয়। 

ইশরাত জাহান তনু ইতিমধ্যেই একাধিক সংবাদ মাধ্যমে সাক্ষাতকারে তার বিরুদ্ধে উঠে আসা সকল অভিযোগ ও ভাইরাল ভিডিওগুলো অস্বীকার করেন। এবং তিনি এসকল অভিযোগের বিরুদ্ধে থানায় সাধারণ ডায়েরি করার পাশাপাশি সাইবার ট্রাইব্যুনালেও মামলা করেন। 

Conclusion: 

অতএব, উপরিউক্ত বিশ্লেষণ থেকে নিশ্চিত হওয়া যায় যে ভাইরাল ভিডিওটি বাংলাদেশের নয়, বরং তিন বছর পুরনো ভারতীয় ফেসবুক ব্যবহারকারীর আইডি থেকে আপলোড করা হয় সর্বপ্রথম। 

Result: False

Our Sources:
চ্যানেল ২৪যমুনা টিভির প্রতিবেদন
Sudhamay Sarkar


সন্দেহজনক কোনো খবর ও তথ্য সম্পর্কে আপনার প্রতিক্রিয়া জানাতে অথবা সত্যতা জানতে আমাদের লিখে পাঠান checkthis@newschecker.in অথবা whatsapp করুন- 9999499044 এই নম্বরে। আমাদের WhatsApp চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন এখানে ক্লিক করে।এছাড়াও আমাদের সাথে Contact Us -র মাধ্যমে যোগাযোগ করতে পারেন ও ফর্ম ভরতে পারেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

Most Popular