রবিবার, এপ্রিল 21, 2024
রবিবার, এপ্রিল 21, 2024

HomeFact CheckFact check: তাবাসসুম শাইক নয়, ভাইরাল ভিডিওতে থাকা মেয়েটি মুসকান খান 

Fact check: তাবাসসুম শাইক নয়, ভাইরাল ভিডিওতে থাকা মেয়েটি মুসকান খান 

Claim- হিজাব আন্দোলনকারী তাবাসসুম শাইক দ্বাদশ শ্রেণির পরীক্ষায় সমগ্র ভারতে প্রথম হন।
Fact- ভিডিওটিতে থাকা মেয়েটি তাবাসসুম শাইক নয়, বরং মুসকান খান।

‘তাবাসসুম শাইক দ্বাদশ শ্রেনির পরীক্ষায় সমগ্র ভারতে প্রথম হয়’ দাবিতে বিভিন্ন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ও গণমাধ্যমে একটি ভিডিও ভাইরাল হয়েছে। পোস্টগুলোতে দাবি করা হচ্ছে তাবাসসুম দ্বাদশ শ্রেনির পরীক্ষায় সমগ্র ভারতে প্রথম স্থান অধিকার করেছে। একই সাথে তাবাসসুম এর ভুল ছবিও প্রচার করে যাচ্ছে। পোস্টগুলো দেখুন এখানে- টিকটক, টিকটকটিকটক। 

ভুল ছবি প্রচারের আরও একটি ভিডিও দেখুন এখানে- কালবেলা । 

নিউজচেকার-বাংলাদেশ দাবিটি যাচাই করে দেখেছে, দাবিটি মিথ্যা।

Fact check/ Verification

 গুগল কিওয়ার্ড ও রিভার্স ইমেজ সার্চ এর সাহায্যে নিউজচেকার বাংলাদেশ যাচাই করে দেখেছে যে ভিডিওতে প্রচারিত ছবিটি তাবাসসুম শাইক এর নয় বরং মুসকান খান এর। একই সাথে তাবাসসুম শাইক সমগ্র ভারতে নয়, কর্ণাটকে দ্বাদশ পরীক্ষায় মানবিক বিভাগ থেকে প্রথম হয়েছে। 

কর্ণাটকে প্রথম হওয়ার প্রতিবেদন দেখুন এখানে- The Indian Express

দ্যা ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস এর প্রতিবেদন অনুযায়ী তাবাসসুম শাইক সমগ্র ভারত নয় বরং মানবিক বিভাগ থেকে কর্ণাটক প্রদেশে প্রথম হয়। একইভাবে বিভিন্ন জায়গায় তার নামে যে ভিডিওটি প্রচারিত হচ্ছে, যেখানে একজন মেয়েকে ‘আল্লাহ আকবর! আল্লাহু আকবর!’ বলতে শুনা যাচ্ছে তা মূলত মুসকান খান নামক অন্য একজন শিক্ষার্থীর। মুসকান খান কর্ণাটকের মান্দ্যিয়া প্রি-ইউনিভার্সিটি কলেজের একজন শিক্ষার্থী। মুসকান খানের ভিডিওটি দেখুন-এখানে  ও এখানে। 

‘আল্লাহু আকবর! আল্লাহু আকবর!’ বলতে থাকা মুসকান খান। 

Conclusion:

ভাইরাল ভিডিওতে থাকা মেয়েটি তাবাসসুম শাইক নয়, মুসকান খান। 

Result: False

Our Sources: 
The Indian Express.
DNAIndia News
BBC News


সন্দেহজনক কোনো খবর ও তথ্য সম্পর্কে আপনার প্রতিক্রিয়া জানাতে অথবা সত্যতা জানতে আমাদের লিখে পাঠান checkthis@newschecker.in। এছাড়াও আমাদের সাথে Contact Us – ফর্মের মাধ্যমে যোগাযোগ করতে পারেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

Most Popular